গ্রিস সীমান্তে ট্রাক থেকে ১৪৪ বাংলাদেশিকে আটক করেছে পুলিশ

0
926

*হারুন অর রশিদ , গ্রিস থেকে

করোনা সংক্রমণের মধ্যে গ্রিস সীমান্তবর্তী নর্থ মেসিডোনিয়ায় একটি ট্রাক থেকে আবারও ১৪৪ বাংলাদেশিসহ মোট ২১১ জন অভিবাসন প্রত্যাশীকে আটক করেছে পুলিশ। বাকি ৬৭ জন পাকিস্তানের নাগরিক।

এর আগে গত মাসের শেষ দিকে বাংলাদেশের আরও ৬৪ নাগরিককে একইভাবে ট্রাক থেকে আটক করা হয়। খবর আলজাজিরার।

উত্তর মেসিডোনিয়ার পুলিশ জানিয়েছে, গেভজেলিজা শহরের কাছে সোমবার গভীর রাতে একটি ট্রাককে থামায় সীমান্তে টহলরত নিরাপত্তা বাহিনী।

এর পরেই ওই ট্রাকের ভেতর থেকে দুই শতাধিক অভিবাসীকে আটক করা হয়। ওই ট্রাকের চালককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। নিয়মিত টহলে একটি ট্রাক থেকে ওই অভিবাসীদের আটক করা হয়েছে। ১৪৪ বাংলাদেশি ছাড়াও ৬৭ পাকিস্তানি নাগরিক ছিলেন ওই ট্রাকে।
আটক হওয়া অভিবাসন প্রত্যাশীদের মধ্যে ৬৩ জনই অপ্রাপ্তবয়ষ্ক বলে জানা গেছে।

চলতি বছরের শুরু থেকেই করোনা মহামারীর কারণে গ্রিসের সঙ্গে উত্তর মেসিডোনিয়ার সীমান্ত বন্ধ করে দেয়া হয়। তার পরও মানবপাচার থেমে নেই।

কিন্তু মানবপাচারকারী চক্রগুলো ওই এলাকায় এখনও সক্রিয় রয়েছে। এসব চক্র অভিবাসীদের অবৈধভাবে তুরস্ক হয়ে গ্রিসে, এর পর উত্তরের দিক থেকে ইউরোপের বিভিন্ন দেশে যেতে সহায়তা করে আসছে।

ট্রাক থেকে আটক হওয়া অভিবাসীদের অবৈধ অনুপ্রবেশের দায়ে গ্রেফতার দেখিয়ে তাদেরকে গ্রিসে ফেরত পাঠাতে সীমান্তের একটি ট্রানজিট আশ্রয় কেন্দ্রে রাখা হয়েছে।

ফ্রান্স বাংলা-০৮/০৭/২০২০

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here